ভুয়া পুলিশ সদস্য আটক করেছে মানিকগঞ্জ সদর থানা পুলিশ

আফ্রিদি আহাম্মেদ, মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি | ২২ সেপ্টেম্বর ২০২২ ২১:৩৫

সংগৃহীত সংগৃহীত

মানিকগঞ্জ জেলা সদর উপজেলার বড়াই সাকিনস্থ গ্রাম থেকে এক ভুয়া পুলিশ ও তার সহযোগীকে আটক করেছে মানিকগঞ্জ সদর থানা পুলিশ।

গত ১১ সেপ্টেম্বর আনুমানিক রাত ২ ঘটিকায় ভুয়া আইডি কার্ড সহ ভুয়া পুলিশকে আটক করা হয়।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, সদর উপজেলার বড়াই সাকিনস্থ গ্রামের ইউসুফ আলম নামে এক ব্যক্তির বাড়িতে রাত ১ ঘটিকায় মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান নামক এক ব্যক্তি তার বাড়িতে এসে ডিএমপি ঢাকা তেজগাঁও থানায় কর্মরত আছে বলে নিজেকে পুলিশ পরিচয় প্রদান করেন এবং পরবর্তীতে ইউসুফ আলমের দ্বিতীয় স্ত্রী মিনুরা বেগমকে তালাক প্রদানের জন্য মোস্তাফিজুর রহমান ও মেহেরুন্নেছা প্রিয়া এর যোগসাজসে বিভিন্ন হুমকি প্রদান করে ও একপর্যায়ে তাকে গায়ে হাত তোলার জন্য অবস্থান করেন।

তখন ইউসুফ আলম ডাক চিৎকার করে স্থানীয় লোকজন জড়ো করেন এবং মোস্তাফিজুর রহমান ও মেহেরুন্নেছা প্রিয়াকে জিজ্ঞাসাবাদ করেন। এতে আচরণ সন্দেহজনক লাগলে এলাকাবাসী জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯ কল করেন এবং তৎক্ষণাৎ মানিকগঞ্জ সদর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে হাজির হন। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তিনি পুলিশ সদস্য পরিচয় প্রদান করে তেজগাঁও থানায় কর্মরত আছে বলে একটি আইডি কার্ড প্রদর্শন করেন। তবে মেহেরুন্নেছা প্রিয়াকে জিজ্ঞেস করলে তিনি বলেন মোস্তাফিজুর রহমান তার স্বামী। পরবর্তীতে তাদের জিজ্ঞাসাবাদে তারা স্বীকার করেন তারা দীর্ঘদিন যাবত ভুয়া পুলিশ সেজে বিভিন্ন মানুষের সাথে প্রতারণা করে আসছেন।

মূলত মোস্তাফিজুর রহমান ও মেহেরুন্নেছা প্রিয়া এই দুজনের যোগসাজসেই চলে এই ভুয়া পুলিশ সেজে প্রতারণা।

আসামিদের নাম: ১। মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান (২৩), পিতা-মোঃ সেলিম মিয়া, গ্রাম-মুলজান, ও জেলা মানিকগঞ্জ, ২। মেহেরুন্নেসা প্রিয়া (১৯), পিতা-ইউসুফ আলম, ডাকঘর- মত্ত, থানা ও জেলা মানিকগঞ্জ।

তবে ভুয়া পুলিশের ঠিকানা অনুযায়ী দিঘী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আখতার উদ্দিন আহমেদ (রাজা) এর কাছে ভুয়া পুলিশ মোঃ মোস্তাফিজুর রহমানের ব্যাপারে জানতে চাইলে তিনি জানান, এগুলো নেক্কারজনক ঘটনা আসামিদের দৃষ্টান্তমূলক সর্বোচ্চ শাস্তি দাবি করছি।

এ ছাড়াও স্থানীয় লোকজন ও ইউপি সদস্য ঠিক একই দাবি জানান ভুয়া পুলিশকে মানিকগঞ্জ সদর থানা পুলিশ অতি দ্রুত আটক করায় তাদের বাহবা প্রদান করেন।

এ বিষয়ে মানিকগঞ্জ সদর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আব্দুর রউফ সরকার জানান, বিষয়টি আমরা জানা মাত্রই ঘটনাস্থল থেকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তাদেরকে গ্রেফতার করি এবং অভিযোগের প্রেক্ষিতে তাদের বিরুদ্ধে মামলা রজু করা হয়।



আপনার মূল্যবান মতামত দিন: