ছদ্মবেশে পালিয়ে ২৭ বছর: অবশেষে র‍্যাবের হাতে গ্রেফতার

রবিউল আউয়াল রবি, ময়মনসিংহ: | ৩১ জুলাই ২০২২ ১৫:৫২

সংগৃহীত সংগৃহীত

দীর্ঘ ২৭ বছর পর ময়মনসিংহের ফুলবাড়ীয়া উপজেলার চাঞ্চল্যকর মনোয়ারা হত্যা মামলার যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামীকে গ্রেফতার করেছে ময়মনসিংহ র‌্যাব-১৪।

রবিবার ঢাকা মেট্রোপলিটনের দারুস সালাম থানা এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত সাইফুল ইসলাম ফুলবাড়ীয়ার হুরবাড়ীর মৃত মিজানের ছেলে।

র‌্যাবের পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। এ প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে র‍্যাব-১৪ কোম্পানী অধিনায়ক মেজর আখের মুহম্মদ জয় জানান, ফুলবাড়ীয়া উপজেলার হুরবাড়ী গ্রামের জবেদ আলীর ছেলে মোঃ আব্দুল আউয়ালের সাথে মনোয়ারার বিয়ে হয়। বিয়ের ২ বছর পর ৭/৮ মাসের গর্ভবর্তী মনোয়ারাকে যৌতুকের দাবীতে ১৯৯৪ সালের ১১ ডিসেম্বর রাতে ভিকটিমের স্বামী আব্দুল আউয়াল, তার বোন শামছুন্নাহার, হাফেজা খাতুন এবং ভাতিজা সাইফুল ইসলাম (সইফুল) লাঠি দিয়ে পিটিয়ে নারকীয়ভাবে হত্যা করে। ঘটনাটি ধামাচাপা দেওয়ার জন্য ভিকটিমের মুখে বিষ প্রয়োগ করে অস্বাভাবিক মৃত্যু বলে চালিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করে।

পরে ভিকটিমের ভাই মোঃ শহিদুল্লাহর বিষয়টি সন্দেহ হওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে একটি হত্যা মামলা দায়ের করে। পরবর্তীতে এই মামলায় সাক্ষ্য প্রমাণ শেষে বিজ্ঞ আদালত আসামী সাইফুল ইসলাম (৪৫) -সহ এজাহারনামীয় আসামীর বিরুদ্ধে দঃ বিঃ ৩০২/৩৪ ধারার অপরাধ প্রমাণিত হওয়ায় বিজ্ঞ আদালত সকল আসামীকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড প্রদান করে।

ঘটনার পর থেকে গ্রেফতারকৃত আসামী সাইফুল ইসলাম দীর্ঘ ২৭ বছর যাবৎ দেশের বিভিন্ন জায়গায় নিজের পরিচয় গোপন করে গাঁ ঢাকা দিয়ে ছদ্মবেশে পালিয়ে ছিল।

গ্রেফতারকৃত আসামিকে ফুলবাড়ীয়া থানায় হস্তান্তর করেছে র‌্যাব।



আপনার মূল্যবান মতামত দিন: