পরীক্ষা কেন্দ্রে পরীক্ষার্থী-পরিদর্শকের মোবাইল ভাঙলেন শিক্ষা কর্মকর্তা

আনোয়ার হোসেন আকাশ, রাণীশংকৈল (ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধি | ২০ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১৪:৫২

সংগৃহীত সংগৃহীত

অবৈধভাবে মোবাইল সাথে রাখায় ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জে এসএসসি পরীক্ষার্থী ও কক্ষ পরিদর্শকের মোবাইল ফোন সেট ভেঙ্গে ফেলা হয়েছে।

সোমবার (১৯ সেপ্টেম্বর) দুপুরে পীরগঞ্জ
পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে পরীক্ষা চলাকালিন সময়ে তাদের কাছ থেকে আটক করা ২০ থেকে ২৫টি ফোন ভাঙ্গেন উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা।

জানা যায়, সোমবার ইংরেজী প্রথম পত্র পরীক্ষা চলাকালিন সময়ে পীরগঞ্জ পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শন করেন উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. আরিফুল্লাহ। এ সময় দেহ তল্লাসী করে দুই কক্ষ পরিদর্শক সহ ২০/২৫ জন পরীক্ষার্থীর কাছে মোবাইল ফোন সেট পান এবং ফোন সেট গুলি জব্দ করে অফিস কক্ষে নিয়ে আসেন তিনি। এরপর ফোন সেট গুলি পানিতে ডুবান এবং মেঝেতে আছাড় মেরে ও ইট দিয়ে ভেঙ্গে ফেলেন ঐ শিক্ষা কর্মকর্তা।

পীরগঞ্জ পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্র সচিব মফিজুল হক জানান, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার পরিদর্শন কালে উপজেলার উজ্জলকোঠা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক গোলাপ সহ আরো একজন কক্ষ পরিদর্শক এবং ২০ থেকে ২৫ জন পরীক্ষার্থীর কাছে মোবাইল ফোন পান। পরে অফিস কক্ষে ফোনগুলি ভেঙ্গে ফেলেন তিনি। এর মধ্যে বেশ কিছু দামি সেটও ছিল। নিয়ম অনুযায়ী পরীক্ষার্থী ও পরিদর্শক বহিস্কার হওয়ার কথা। কিন্তু তিনি তা না করে ফোন সেটগুলি ভেঙ্গে ফেলেছেন।

এ প্রসঙ্গে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আরিফুল্লাহ বলেন, প্রথমে পরীক্ষার্থীদের কাছে ফোন থাকলে- চাওয়া হয়েছিল। কিন্তু কেউ দেয়নি। পরে সার্চ করে একেক জনের কাছে একধিক ফোন সেট পাওয়া যায়। এতে মাথা গরম হয়ে যায় তার। পরীক্ষার্থীদের ক্ষতির কথা চিন্তা করে তাদের বহিস্কার করা হয়নি। খাতা কিছুক্ষন আটক করে রাখা হয়েছিল। ফোন গুলি ধ্বংস করা হয়েছে। কক্ষ পরিদর্শকদের শোকজ করা হবে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার শাহরিয়ার নজির বলেন, বিষয়টি তার জানা নেই। খোঁজ নিয়ে দেখবেন বলে জানান তিনি।



আপনার মূল্যবান মতামত দিন: