ক্ষুধার যন্ত্রণায় শিশুর কান্না, গলা টিপে হত্যা করলেন মা

সময় ট্রিবিউন | ৫ জুলাই ২০২২ ১০:৪৬

সংগৃহীত সংগৃহীত

ক্ষুধার যন্ত্রণায় কান্না করায় শিশুকন্যাকে গলা টিপে হত্যা করেছেন তার মা। অভিযুক্ত মা শারমিন আক্তারকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ঘটনাটি ঘটেছে সোমবার সকালে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার ডিগ্রিরচরের আলমগীরের ইটভাটায়। নিহত শিশুর নাম জান্নাতুল। অভাবের তাড়নায় শিশুকন্যাকে হত্যার কথা স্বীকার করেছেন শারমিন।

পুলিশ জানিয়েছে,  ২০১৯ সালে ফতুল্লার পাগলা এলাকার শাকিলের সঙ্গে বিয়ে হয় শারমিনের। তাদের সংসারে জন্ম নেয় জান্নাতুল। মেয়ের বয়স যখন ছয় মাস, তখন মা-মেয়েকে ফেলে আবার বিয়ে করে অন্যত্র চলে যায় শাকিল। স্ত্রী শারমিন ও মেয়ে জান্নাতুলের খোঁজ নিত না সে। এরপর মেয়েকে নিয়ে শারমিন তার বাবার বাড়িতে থাকত। মা-বাবাও তাকে গালাগাল করতেন।

ঠিকমতো খেতে দিতেন না। শিশুটিও ক্ষুধার যন্ত্রণায় কান্না করতো।

শারমিন জানিয়েছে, সোমবার সকালে ক্ষুধার যন্ত্রণায় মেয়ে কান্না শুরু করলে তার গলা টিপে ধরে সে। একপর্যায়ে মেয়ে নড়াচড়া বন্ধ করে দিলে শারমিন তার বাবার বাসায় এসে মাকে ঘটনা জানায়। তখন তার মা তাকে নিয়ে স্থানীয় ফার্মেসিতে যায়। ফার্মেসির লোকজন তাদের নারায়ণগঞ্জ দেড়শ’ শয্যা জেনারেল হাসপাতাল পাঠান। সেখানে গেলে চিকিৎসক শিশুটিকে মৃত ঘোষণা করেন।

ফতুল্লা মডেল থানার এসআই হুমায়ূন কবির বলেন, মৃত শিশুটিকে হাসপাতালে নিয়ে গেলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সন্দেহ হয়। তারা পুলিশকে ঘটনাটি জানায়। পুলিশ হাসপাতালে গিয়ে শারমিনকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে সে নিজেই গলা টিপে মেয়েকে হত্যা করেছে বলে জানায়। তখন পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে।



আপনার মূল্যবান মতামত দিন: